Aajkaal: the leading bengali daily newspaper from Kolkata
কলকাতা ১৫ মাঘ ১৪২১ শুক্রবার ৩০ জানুয়ারি ২০১৫
 প্রথম পাতা   কলকাতা  বাংলা  ভারত  সম্পাদকীয়  খেলা  আজকাল-ত্রিপুরা   পুরনো সংস্করন  বইঘর 
আজ সি বি আই-তে যাচ্ছেন মুকুল--দীপঙ্কর নন্দী ।। ডিম থেকে মাছ যে-কোনও ছোট শিল্পই স্বাগত: মমতা ।। ডি জে চালিয়ে চটুল নাচ, প্রতিবাদ করে আক্রাম্ত আবৃত্তিকার পার্থ ঘোষ, গৌরী ঘোষ ।। কলম্বাসের পদসঞ্চার পাইনো উপজাতিকে উপড়ে ফেলেছিল ।। দিল্লিতে ত্রিপক্ষ বৈঠকে ৬ দফা দাবি মোর্চার ।। এগোচ্ছে আপ? মোদি-শাহ শেষ সপ্তাহে ঝড় তুলতে চান ।। ইভটিজিং: মার খেয়ে কোমায় গেলেন যুবক ।। গডসেকে নিয়ে মেতেছে কিছু পাগল: আর এস এস ।। উত্তরবঙ্গে ১০০ বিঘা জমির খোঁজ দিলেন সুদীপ্ত সেন--সোমনাথ মণ্ডল ।। ওয়াইফাই সিটি হচ্ছে কলকাতা: মেয়র ।। প্রয়াত সুভাষ ঘিসিং ।। যাদবপুরে জয় কলরবের
বাংলা

আজ সি বি আই-তে যাচ্ছেন মুকুল

প্রয়াত সুভাষ ঘিসিং

কাকদ্বীপের আক্রাম্ত শিক্ষককে ফের খুনের হুমকি, ধরা পড়েনি অভিযুক্তরা

ইভটিজিং: মার খেয়ে কোমায় গেলেন যুবক

গডসেকে নিয়ে মেতেছে কিছু পাগল: আর এস এস

হাওড়া স্টেশনে প্রতিবন্ধী ভিখারি যুবককে আর পি এফের বেদম মার

ডিম থেকে মাছ যে-কোনও ছোট শিল্পই স্বাগত: মমতা

উত্তরবঙ্গে ১০০ বিঘা জমির খোঁজ দিলেন সুদীপ্ত সেন

হাঁটুর বদলে পেটে অপারেশন!

অ্যাডভেঞ্চার ট্যুরিজমের প্রসারে শুরু হল হিমালয়ান ড্রাইভ কার র্যালি

মুখ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ চাইলেন এস এস সি-র প্যানেলভুক্ত চাকরিপ্রার্থীরা

বীরভূম: পাশে দাঁড়ালেন বাম প্রতিনিধিরাও

রামপুরহাটে ধর্মাম্তরকরণ: প্রবীণ ও যুগল কিশোরের বিরুদ্ধে এফ আই আর

পুলিসের ভাঙা মঞ্চেই সভা করলেন প্রতিবন্ধীরা

আজও দক্ষিণবঙ্গে বৃষ্টির সম্ভাবনা

বিশ্বভারতী: ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে ধৃত যুবক

বিশ্বভারতী: উপাচার্যের পদত্যাগ চেয়ে আন্দোলনকারীদের সঙ্গে এবার তৃণমূল সাংসদ

বিচারক মন্দাক্রাম্তা হাইকোর্টের বিচারপতির কাছে

৪ জেলার পুলিস সুপার বদল

বেচারামের দিন

দীপক মিত্রের বাড়ি থেকে ৪টি পাইথন সাপ উদ্ধার

বাঁকুড়া জেলা সম্পাদক অজিত পতি

সমবেদনা মুখ্যমন্ত্রীর

ডি জে চালিয়ে চটুল নাচ, প্রতিবাদ করে আক্রাম্ত আবৃত্তিকার পার্থ ঘোষ, গৌরী ঘোষ

আজ সি বি আই-তে যাচ্ছেন মুকুল

দপ্তরের সামনে কোনও বিক্ষোভ চান না

Google plus share Facebook share Twitter share LinkedIn share

দীপঙ্কর নন্দী




কোনও অশাম্তি চাইছেন না তিনি৷‌ সি বি আই দপ্তরের সামনে তাঁকে কেন্দ্র করে কোনও বিক্ষোভ যাতে না হয়, তার জন্য বৃহস্পতিবার মুকুল রায় দলের কর্মীদের কাছে আবেদন জানিয়েছেন৷‌ আজ বেলা ১১টায় সল্টলেকে সি বি আই দপ্তরে যাচ্ছেন তিনি৷‌ বৃহস্পতিবার দিনভর নিজাম প্যালেসে কাটিয়েছেন মুকুল৷‌ সারাদিনই দলের বেশ কয়েকজন নেতা ও কর্মী তাঁর সঙ্গে দেখা করেছেন৷‌ নিজাম প্যালেসে ছিলেন সাংসদ সৌমিত্র খান৷‌ বিধায়কদের মধ্যে শীলভদ্র দত্ত, পার্থ ভৌমিক, শিউলি সাহা গিয়েছিলেন নিজাম প্যালেসে৷‌ এ ছাড়াও ছিলেন প্রবন্ধ রায় ও সুজিত শ্যাম-সহ অন্য নেতারা৷‌ মুকুলের কোনও উদ্বেগ নেই৷‌ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে মিডিয়ার সঙ্গে আলোচনা করেছেন৷‌ তবে, মিডিয়ার কাছে অনুরোধ করেছেন, তাঁকে নিয়ে যেন আজ বেশি লেখালেখি না হয়৷‌ তিনি এও বলেছেন, যা বলার শুক্রবার সি বি আই থেকে বেরিয়ে বলবেন৷‌ তিনি এও বলেন, কোনও কেন্দ্রীয় তদম্ত সংস্হা তদম্তের স্বার্থে কাউকে ডাকতে পারে৷‌ তাকে কেন্দ্র করে কোনও অবাঞ্ছিত ঘটনা অনভিপ্রেত৷‌ বিচারকদের রায় সমালোচনা করার জন্য নির্দিষ্ট ফোরাম থাকে৷‌ সেখানে বলা উচিত৷‌ অন্যদিকে মিডিয়ার সঙ্গে যখন কথা বলছিলেন মুকুল, সেই সময় সন্ধে নাগাদ একটি জরুরি ফোন পেয়ে নিজাম প্যালেস ছাড়েন তিনি৷‌ বিক্ষোভ না করার জন্য মুকুল আবেদন করলেও, নিজাম প্যালেসের নিচে যে-সব কর্মী দাঁড়িয়েছিলেন, তাঁদের মধ্যে অনেকেই বলেছেন, আমরা কিন্তু শুক্রবার সি বি আই দপ্তরের সামনে যাব৷‌ কর্মীদের আবেগ অনুরোধ জানিয়ে কমানো যায় না৷‌ তৃণমূল সূত্রে জানা গেছে, যুব, ছাত্র ও মহিলা কর্মীদের শুক্রবার সকালে সি বি আই দপ্তরের সামনে বিক্ষোভ দেখানোর নির্দেশ দেওয়া হয়েছে৷‌ নিজাম প্যালেসে ভিড় থাকলেও তৃণমূল ভবন ছিল বেশ ফাঁকা৷‌ যদিও দুপুরে ভবনে গিয়েছিলেন রাজ্য সভাপতি সুব্রত বক্সি৷‌ মুকুলকে সি বি আই প্রথম একবার নোটিস পাঠায়৷‌ সেই সময় মুকুল সি বি আইয়ের কাছে ৭ দিনের সময় চান৷‌ ঠিক হয়, ২৮ জানুয়ারি তিনি সি বি আই দপ্তরে যাবেন৷‌ এর কয়েকদিন পরেই মুকুলকে সি বি আই থেকে মেল করে জানানো হয়, ৩০ জানুয়ারি তাঁকে হাজিরা দিতে হবে৷‌ মুকুল সেই সময় দিল্লিতে ছিলেন৷‌ দিল্লি থেকেই তিনি মিডিয়াকে বলেন, সহযোগিতার মনোভাব নিয়েই তিনি ৩০ জানুয়ারি সি বি আই দপ্তরে যাবেন৷‌ পাশাপাশি এও বলেন, দীর্ঘ রাজনৈতিক জীবনে তিনি কোনও অনৈতিক কাজ করেননি৷‌ দলের কাজ ছাড়া অন্য কিছু তিনি ভাবেন না৷‌ দলই তাঁর কাছে বড়৷‌ আর এই দলের নেত্রী মমতা ব্যানার্জি৷‌ আজ পর্যম্ত তিনি দলের বিরুদ্ধে একটি শব্দও মিডিয়াকে বলেননি৷‌ অন্য দিকে সি বি আই সূত্রে জানা গেছে, কয়েকটি নির্দিষ্ট বিষয়ে জানার জন্য প্রায় ৫০টি প্রশ্ন তৈরি করেছে সি বি আই৷‌ দিল্লি থেকেও কয়েকজন সি বি আইয়ের পদস্হ কর্তা কলকাতায় এসেছেন৷‌ তাঁরাও মুকুল রায়ের কাছে কিছু জানতে চাইবেন৷‌ অন্য দিকে, তৃণমূলের মন্ত্রী মদন মিত্র রয়েছেন আলিপুর জেলে৷‌ তিনি সুস্হ আছেন৷‌ প্রায় প্রতিদিনই বাড়ির লোকেরা এসে তাঁর সঙ্গে দেখা করছেন৷‌ এদিকে, সারদা তদম্ত নিয়ে সি বি আইয়ের বিরুদ্ধে অভিযোগ নিয়ে রাজ্য সরকার সুপ্রিম কোর্টে মামলা করেছে৷‌ তৃণমূল থেকেও মামলা হয়েছে৷‌ মামলা লড়ছেন বিশিষ্ট আইনজীবী ও কংগ্রেস নেতা কপিল সিবাল৷‌ রাজ্য সরকারের হয়ে একজন কংগ্রেসের নেতা কেন মামলা লড়ছেন, তা নিয়ে প্রদেশ কংগ্রেস ইতিমধ্যেই ক্ষোভ প্রকাশ করেছে৷‌ ক্ষোভ উগরে দেওয়া হয়েছে সোনিয়া গান্ধীর কাছে৷‌ রাজ্য কংগ্রেস সভাপতি অধীর চৌধুরি ইতিমধ্যে জানিয়ে দিয়েছেন, তিনি যতদিন রাজ্য কংগ্রেসের দায়িত্বে থাকবেন, ততদিন কপিল সিবালকে বাংলায় কোনও অনুষ্ঠানে আমন্ত্রণ জানাবেন না৷‌ প্রদেশ কংগ্রেসের প্রাক্তন সভাপতি প্রদীপ ভট্টাচার্য কপিলের বিরুদ্ধে মম্তব্য করেন৷‌ তিনি নিন্দাও করেছেন৷‌ প্রদীপবাবু ও আব্দুলমান্নান আহমেদ প্যাটেলের সঙ্গে দেখা করে বলেন, কপিল সিবালকে এই মুহূর্তে মামলা থেকে সরে দাঁড়ানো প্রয়োজন৷‌ তাঁর কারণ এর ফলে কংগ্রেস কর্মীদের মধ্যে ভুল বার্তা যাবে৷‌ এ আই সি সি থেকে কপিলকে মামলা না লড়ার জন্য নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল কি না তা আজ পর্যম্ত জানা যায়নি৷‌ কপিল কিন্তু এই বির্তকের মধ্যে নিজের অবস্হান থেকে সরে আসেননি৷‌ ২৮ জানুয়ারি মামলা শুনানি ছিল৷‌ বিশেষ কারণে ওই দিন শুনানি হয়নি৷‌ এই মামলার শুনানির কবে হবে তা এখনও ঠিক হয়নি৷‌ এর মধ্যে দিল্লিতে থাকার সময় কয়েকবারই কপিলের সঙ্গে মুকুল বৈঠক করেন৷‌ মামলা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা হয়েছে৷‌ তারপর সি বি আই-তে হাজিরা দেওয়ার জন্য মুকুল দিল্লি থেকে কলকাতায় ফিরে আসেন৷‌ এখানে এসেও তিনি কয়েকজন আইনজীবীর সঙ্গে কথা বলেন৷‌ অন্যদিকে দলের নেতারা এখন বনগাঁ ও কৃষ্ণগঞ্জ উপনির্বাচন নিয়ে ব্যাস্ত৷‌ বনগাঁ নির্বাচনে মূল দায়িত্বে রয়েছেন খাদ্যমন্ত্রী জ্যোতিপ্রিয় মল্লিক৷‌ তিনি এদিন মধ্যমগ্রামে কর্মী সভা করেন৷‌ দল থেকে জানানো হয়েছে, দুটি নির্বাচনে তৃণমূলের জয় নিশ্চিত৷‌ তৃণমূল মনে করে, দুটি জায়গাতে সি পি এম দ্বিতীয় স্হানে থাকবে৷‌ বি জে পি-র স্হান হবে তিন নম্বরে৷‌ কপিল কৃষ্ণ ঠাকুরের মৃত্যুতে বনগাঁর আসনটি শূন্য হয়৷‌





kolkata || bangla || bharat || editorial || khela || Tripura || Error Report || archive || first page

B P-7, Sector-5, Bidhannagar, Kolkata - 700091, Phone: 30110800, Fax: 23675502/5503
Copyright © Aajkaal Publishers Limited

Designed, developed & maintained by   Remote Programmer Private Limited