Aajkaal: the leading bengali daily newspaper from Kolkata
কলকাতা ৩১ ভাদ্র ১৪২১ বুধবার ১৭ সেপ্টেম্বর ২০১৪
 প্রথম পাতা   কলকাতা  বাংলা  ভারত  সম্পাদকীয়  উত্তর সম্পাদকীয়  খেলা  আজকাল-ত্রিপুরা   পুরনো সংস্করন  বইঘর 
বসিরহাট দক্ষিণে বি জে পি, চৌরঙ্গিতে তৃণমূল ।। বসিরহাটে বি জে পি-র জয়কে গুরুত্ব দিচ্ছে না তৃণমূল ।। কালিয়াচকে পুড়ল ৫ দোকান, জাতীয় সড়কে বোমাবাজি, অবরোধ ।। সূর্যকাম্ত: চিটফান্ডের মাধ্যমে লুট করা সব টাকাই আদায় করা হবে ।। রজত: মানসিক নির্যাতন করছে আমাকে--সি বি আই: উনি সহযোগিতা করছেন না ।। শহর জেতাল শমীককে--স্বদেশ ভট্টাচার্য ।। বাংলাদেশি ইলিশ আনতে কেন্দ্রকে আর্জি মৎস্যমন্ত্রীর ।। আজ আসছেন জিনপিং, অনেক আশায় মোদি ।। ক্যাম্পাসে যৌন হেনস্হার প্রতিবাদে যাদবপুরে উপাচার্য ঘেরাও ।। মেমারিতে বাবার কবরের পাশেই সমাহিত সৈফুদ্দিন--বিজয়প্রকাশ দাস ।। মোদি-হাওয়া উধাও ।। দাম কমবে ডিজেলের?
আজকাল-ত্রিপুরা

রক্ত সঞ্চালন পর্ষদের পর্যালোচনাসভায় মুখ্যমন্ত্রী

এম বি বি কলেজে আগুন, অভিযোগ এন এস ইউ আইয়ের দিকে

সভাপতি অনিল সরকার, সাধারণ সম্পাদক সুধন দাস

আকাশছোঁয়া মূল্যবৃদ্ধির মধ্যেও ঘরে ঘরে পৌঁছে গেলেন বিশ্বকর্মা

হ্যাটট্রিক সুরজিতের

সভাপতি অনিল সরকার, সাধারণ সম্পাদক সুধন দাস

জামানত গেল বি জে পি, তৃণমূল, আই এন পি টি-আই পি এফ টি-র

শারদোৎসব শাম্তিপূর্ণ রাখতে আবেদন জানালেন মহকুমা শাসক

মন্ত্রিসভার সিদ্ধাম্ত

দিনমজুর ইউনিয়নের সম্মেলন সুভাষনগরে

পূর্ত দপ্তরের পর্যালোচনা সভায় মুখ্যমন্ত্রী

কামালঘাটে অমূল্য স্মৃতি ফুটবল

রক্ত সঞ্চালন পর্ষদের পর্যালোচনাসভায় মুখ্যমন্ত্রী

রক্তদানে উদ্বুদ্ধ করুন ছাত্রছাত্রীদের, ভবিষ্যতে এরাই প্রয়োজন মেটাবে

Google plus share Facebook share Twitter share LinkedIn share

আজকালের প্রতিবেদন: আগরতলা, ১৬ সেপ্টেম্বর– স্কুল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ে পাঠরত ছাত্রছাত্রীদের স্বেচ্ছা রক্তদান বিষয়ে উদ্বুদ্ধ করতে পারলে ভবিষ্যতে তারাই রক্ত দান করে আমাদের প্রয়োজন মেটাবে৷‌ ছাত্র ও যুবদের মঝ্যে স্বেচ্ছা রক্তদান সম্পর্কে উদ্বুদ্ধকরণের কাজ খুব গুরুত্ব দিয়ে করা দরকার৷‌ পাশাপাশি মহিলাদেরও রক্তদান সম্পর্কে উৎসাহিত করে তুলতে হবে৷‌ রাজ্যের মহিলারা রাজনৈতিক ও গণতান্ত্রিকভাবে অনেক বেশি অগ্রসর ও সচেতন৷‌ তাই রক্তদানের বিষয়েও তাঁদের এগিয়ে আসতে হবে৷‌ আজ বিকেলে মহাকরণে আয়োজিত ত্রিপুরা রাজ্য রক্ত সঞ্চালন পর্ষদের পর্যালোচনাসভায় উপরোক্ত মম্তব্য করেন মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার৷‌ মুখ্যমন্ত্রীর সভাপতিত্বেই পর্ষদের এই পর্যালোচনাসভা হয়৷‌ মুখ্যমন্ত্রী ছাড়াও সভায় উপস্হিত ছিলেন স্বাস্হ্য ও পরিবারকল্যাণ দপ্তরের মন্ত্রী বাদল চৌধুরি, যুব ও ক্রীড়া দপ্তরের মন্ত্রী সহিদ চৌধুরি, আগরতলা পুরনিগমের মেয়র প্রফুল্লজিৎ সিনহা, আগরতলাস্হিত রামকৃষ্ণ মিশনের সেক্রেটারি স্বামী হিতকামানন্দ, মুখ্য সচিব জি কে রাও, রাজ্য পুলিসের ভারপ্রাপ্ত মহানির্দেশক কে নাগরাজ, স্বাস্হ্য দপ্তরের সচিব এম নাগারাজু, রক্ত সঞ্চালন পর্ষদের সদস্য-সচিব ডাঃ বি ডি সাহা, স্বাস্হ্য দপ্তরের পদস্হ আধিকারিকগণ এবং বিভিন্ন গণসংগঠন ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের কর্মকর্তাবৃন্দ৷‌ পর্যালোচনাসভার শুরুতে পর্ষদের সদস্য-সচিব পাওয়ার পয়েন্ট প্রেজেন্টেশনের মাধ্যমে বর্তমান বছরের এপ্রিল থেকে আগস্ট পর্যম্ত স্বেচ্ছা রক্তদান কর্মসূচির সামগ্রিক চিত্র বর্ণনা করেন৷‌ এই চিত্র অনুযায়ী দেখা যাচ্ছে, এই সময়ের মধ্যে ৩১০টি রক্তদান শিবির আয়োজনের মধ্য দিয়ে মোট ১২,২৫৬ ইউনিট রক্ত সংগৃহীত হয়েছে, যার মধ্যে বিভিন্ন গণসংগঠন ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের উদ্যোগে আয়োজিত স্বেচ্ছা রক্তদান শিবিরের মাধ্যমে সংগৃহীত রক্তের পরিমাণ ১১,৮২৭ ইউনিট, যা মোট সংগ্রহের ৯৬.৪৯ শতাংশ৷‌ দেখা যাচ্ছে, স্বেচ্ছা রক্তদানের ক্ষেত্রে মহিলারা এখনও অনেক পিছিয়ে৷‌ চলতি অর্থবছরে স্বেচ্ছা রক্তদানের ক্ষেত্রে পুরুষদের অংশগ্রহণ যেখানে ৮৭.৬৩ শতাংশ, সেখানে মহিলাদের ক্ষেত্রে তা ১২.৩৭ শতাংশ৷‌ মহিলাদের বিভিন্ন সমস্যার কথা স্বীকার করে নিয়েও মুখ্যমন্ত্রী এ বিষয়ে সচেতনতা বৃদ্ধির ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন৷‌ ছাত্রীদের প্রতিটি উচ্চমাধ্যমিক বিদ্যালয়ে স্বেচ্ছা রক্তদান শিবির আয়োজন করার জন্য তিনি উদ্যোগ গ্রহণ করতে বলেন৷‌ ২০১৫-এর মার্চ মাসের মধ্যে প্রতিটি উচ্চমাধ্যমিক বিদ্যালয়, টেকনিক্যাল-সহ সমস্ত ধরনের কলেজ, আই টি আই, পলিটেকনিক ও বিশ্ববিদ্যালয়ে অম্তত একটি স্বেচ্ছা রক্তদান শিরির আয়োজন করার জন্য তিনি নির্দেশ দিয়েছেন৷‌ পাশাপাশি, এই শিক্ষাঙ্গনগুলোতে ছাত্রছাত্রীদের মধ্যে স্বেচ্ছা রক্তদান সম্পর্কে উদ্বুদ্ধকরণের কাজ সম্প্রসারিত করার জন্য তিনি নির্দেশ দিয়েছেন৷‌ এজন্য জাতীয় সেবা প্রকল্প (এন এস এস)গ্গকে বিশেষ উদ্যোগ গ্রহণ করার জন্য বলেছেন তিনি৷‌ স্বেচ্ছা রক্তদান বিষয়ে উদ্বুদ্ধকরণের জন্য ভিডিও ফিল্ম তৈরি করা এবং বেতার ও বৈদ্যুতিন মাধ্যমে জিঙ্গল প্রচার করার জন্যে তিনি স্বাস্হ্য ও পরিবারকল্যাণ দপ্তরকে নির্দেশ দিয়েছেন৷‌ প্রতিটি গণসংগঠন ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের উদ্যোগে পঞ্চাশ থেকে একশো জনের স্বেচ্ছা রক্তদাতার একটি নামের তালিকা তৈরি করে তা রক্ত সঞ্চালন পর্ষদের কাছে জমা দেওয়ার জন্য আবেদন জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী৷‌ এই তালিকা থেকেই প্রয়োজনের রক্ত সংগ্রহ করা যাবে বলে তিনি মম্তব্য করেন৷‌ এই তালিকায় রেয়ার গ্রুপের রক্তদাতার নামও উল্লেখ করার জন্য তিনি পরামর্শ দিয়েছেন৷‌ এই রেয়ার গ্রুপের রক্তদাতাদের সঙ্গে প্রতিনিয়ত যোগাযোগ রাখার জন্য তিনি স্বাস্হ্য ও পরিবারকল্যাণ দপ্তরকে নির্দেশ দিয়েছেন৷‌ জি বি হাসপাতালে নির্মীয়মাণ সেন্ট্রাল ব্লাড ব্যাঙ্কের কাজ ত্বরান্বিত করার জন্য স্বাস্হ্য ও পরিবারকল্যাণ দপ্তরকে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিতে বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী৷‌ পাশাপাশি আগরতলায় অবস্হিত স্টুডেন্টস হেলথ হোমে একটি ব্লাড ব্যাঙ্ক স্হাপন করার জন্যও দপ্তরকে উদ্যোগ নিতে বলেছেন তিনি৷‌ রক্তদানের পাশাপাশি মরণোত্তর চক্ষুদানের বিষয়ে সচেতনতা গড়ে তুলতে ব্যাপক প্রচার চালানোর জন্য মুখ্যমন্ত্রী সবার কাছে আহ্বান জানান৷‌ বিশেষ করে মরণোত্তর চক্ষুদানে আমাদের পিছিয়ে থাকার কথা উল্লেখ করে আসন্ন শারদোৎসবের আগে এ বিষয়ে পোস্টার ছাপিয়ে তা পুজোমণ্ডপগুলোতে প্রচারের জন্য সরবরাহ করতে তিনি স্বাস্হ্য ও পরিবারকল্যাণ দপ্তরকে নির্দেশ দিয়েছেন৷‌ আগামী দিনে স্বেচ্ছা রক্তদানের মাধ্যমে আমাদের প্রয়োজনীয় রক্তের একশো শতাংশ সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা অর্জনের লক্ষ্যে সভায় উপস্হিত বিভিন্ন গণসংগঠন ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন এবং বিভিন্ন সরকারি দপ্তরকে সর্বাত্মক প্রচেষ্টা নিতে মুখ্যমন্ত্রী আবেদন জানান৷‌


kolkata || bangla || bharat || editorial || post editorial || khela || Tripura ||
Error Report || archive || first page

B P-7, Sector-5, Bidhannagar, Kolkata - 700091, Phone: 30110800, Fax: 23675502/5503
Copyright © Aajkaal Publishers Limited

Designed, developed & maintained by   Remote Programmer Private Limited