Aajkaal: the leading bengali daily newspaper from Kolkata
কলকাতা ৩ ভাদ্র ১৪২১ বুধবার ২০ আগস্ট ২০১৪
 প্রথম পাতা   কলকাতা  বাংলা  ভারত  বিদেশ  সম্পাদকীয়  উত্তর সম্পাদকীয়  খেলা  আজকাল-ত্রিপুরা   পুরনো সংস্করন  বইঘর 
সিঙ্গাপুরের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বিনিয়োগ নিয়ে মুখ্যমন্ত্রীর সফল বৈঠক ।। শুনিয়া-কাণ্ডে গ্রেপ্তার ৩ তৃণমূলি--ধর্ষণ, খুনের অভিযোগ ওড়াল পুলিস ।। সারদার সমস্ত সম্পত্তি লুটপাট হচ্ছে: সুদীপ্ত ।। না জানিয়ে পান্ধই-চার্জশিট! ক্ষুব্ধ কোর্টের তলব ডি জি-কে ।। দিল্লি কঠোর, তাও পাক দূতের কাছে গিলানি, বাইরে বিক্ষোভ ।। কাল উপনির্বাচন, সমীক্ষা বলছে বিহারে সমানে সমানে দুই শিবির ।। যোজনা কমিশনের বিকল্প নিয়ে জনমত চাইছেন মোদি ।। বিরোধী নেতার পদ: কংগ্রেসের আবেদন খারিজ করলেন সুমিত্রা ।। ইন্দোরের কারখানা বেচে হিন্দমোটর পুনরুজ্জীবন? ।। পায়ে বল নিয়েই ভোটের ময়দানে নেমে পড়লেন দীপেন্দু ।। ৩০ আগস্ট পর্যম্ত বাস ধর্মঘট নয় ।। চৌরঙ্গি: বামপ্রার্থী আনোয়ারা?
আজকাল-ত্রিপুরা

কল্যাণপুরের কাছে স্কুলমাঠে কপ্টারের জরুরি অবতরণ, রক্ষা পেলেন সস্ত্রীক রাজ্যপাল

১০৫ নিয়োগ হবে মৎস্য দপ্তরে

গ্রেড-পে থেকে কেন্দ্রীয় হারে বেতন

ব্রডগেজের জন্য রেলপথ বন্ধ

মহিলা নকআউট: ম্যাচের সেরা কবিতা

বৃক্ষরোপণের বিশ্বরেকর্ড গড়ল বি এস এফ

সতর্ক ও সাহসী হতে পরামর্শ বিজিতার

উত্তেজনাপূর্ণ ম্যাচে জয় পেল মনু বনকুল

অমরপুরে টি এস ইউয়ের প্রতিষ্ঠা দিবস পালন

মনুতে সি পি এম প্রার্থী প্রভাত চৌধুরি

দ্বিমুকুট উৎসর্গ ডি জি-কে: সন্দীপ

কল্যাণপুরের কাছে স্কুলমাঠে কপ্টারের জরুরি অবতরণ, রক্ষা পেলেন সস্ত্রীক রাজ্যপাল

সয়াবিনের মিড-ডে মিল খেলেন ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে

Google plus share Facebook share Twitter share LinkedIn share

গোপাল ভট্টাচার্য, কল্যাণপুর ও মেঘধন দেব, আগরতলা

১৯ আগস্ট– দুর্ঘটনার হাত থেকে অল্পের জন্য রক্ষা পেল পবনহংস হেলিকপ্টার৷‌ বেঁচে গেলেন ত্রিপুরা এবং নাগাল্যান্ডের রাজ্যপাল পদ্মনাভ বালকৃষ্ণ আচার্য এবং তাঁর স্ত্রী৷‌ হেলিকপ্টারটিকে কল্যাণপুরের বৈরাগীপাড়া নিম্নবুনিয়াদি বিদ্যালয়ের মাঠে জরুরি অবতরণ করাতে হয়৷‌ কোহিমা থেকে আগরতলা আসার পথে খারাপ আবহাওয়ার জন্য পাইলট এই জরুরি অবতরণ করাতে বাধ্য হন৷‌ মঙ্গলবার বৃষ্টির মধ্যে কল্যাণপুরের ওই স্কুলমাঠে হেলিকপ্টার অবতরণের সঙ্গে সঙ্গে ছুটে যান পুলিস ও প্রশাসনের কর্মকর্তারা৷‌ সস্ত্রীক রাজ্যপালকে গাড়ির কনভয় করে আগরতলা আনা হয়৷‌ দু’জনেই সম্পূর্ণ সুস্হ৷‌

কল্যাণপুরের খবর: লাল-সাদা রঙের হেলিকপ্টারটি দুপুর দেড়টা নাগাদ হঠাৎই ওই স্কুলমাঠে অবতরণ করে৷‌ কোনও আগাম ঘোষণা বা প্রস্তুতির চিহ্ন ছিল না৷‌ চলছিল স্কুলের ক্লাসও৷‌ স্কুলের ছোট মাঠে হঠাৎ একটি কপ্টার নামতে দেখে চারপাশের এলাকার কৌতূহলী লোকজন ছুটে আসেন৷‌ ক্লাস ছেড়ে বেরিয়ে পড়ে ছাত্রছাত্রীরা৷‌ শিক্ষকেরাও হতচকিত৷‌ মুহূর্তের মধ্যেই ভিড় জমে যায়৷‌ সবাই অবাক৷‌ কী করে এখানে হেলিকপ্টার নামল! পাইলট কপ্টারের দরজা খুলতেই বেরিয়ে আসেন রাজ্যপাল পদ্মনাভ বালকৃষ্ণ আচার্য, তাঁর স্ত্রী কবিতা আচার্য-সহ ৬ জন৷‌ তাঁদের চোখেমুখে উদ্বেগের ছায়া তখনও কাটেনি৷‌ খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্হলে ছুটে আসেন জেলার পুলিস সুপার রতিরঞ্জন দেবনাথ, তেলিয়ামুড়ার মহকুমা শাসক বিম্বিসার ভট্টাচার্য, কল্যাণপুর ব্লকের বি ডি ও হর্ষিতা বিশ্বাস-সহ পুলিস প্রশাসনের বড়সড় দল৷‌ নিরাপত্তাকর্মীরা ঘিরে ফেলেন হেলিকপ্টারটি৷‌ রাজ্যপাল এবং তাঁর স্ত্রী কপ্টার থেকে নামতেই সোজা তাঁদের স্কুলের ক্লাসঘরে নিয়ে বসানো হয়৷‌ রাজ্যপাল কথা বলেন শিক্ষক, ছাত্রছাত্রী এবং এলাকার লোকজনের সঙ্গে৷‌ উদ্বেগ কাটতেই খুব খোশমেজাজে ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে এক টেবিলে বসে মিড-ডে মিল খাবেন বলেন৷‌ সেই মতো ছাত্রছাত্রীদের সঙ্গে এক টেবিলে বসে মিড-ডে মিলের ডাল-ভাত, সবজি, সয়াবিনের তরকারিও খান৷‌ বৈরাগীপাড়ার লোকজন যেন স্বপ্ন দেখছিলেন৷‌ খুশি সবাই৷‌ ছাত্রছাত্রীরা এই সুযোগে বিদ্যালয়ের চারটি সমস্যার কথা রাজ্যপালকে জানান৷‌ স্কুলে পানীয় জলের ব্যবস্হা করা, মিনি স্টেডিয়ামের বাউন্ডারি ওয়াল করে দেওয়ার মতো গুরুত্বপূর্ণ দাবি ছিল৷‌ পরে বৈরাগীপাড়া স্কুলেই সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলতে গিয়ে রাজ্যপাল জানান, দুর্যোগের আবহাওয়ার জন্য হেলিকপ্টারটিকে এখানে জরুরি অবতরণ করাতে হয়৷‌ রাজ্যপাল এক ঘণ্টার মতো স্কুলে কাটিয়ে জেলার পুলিস সুপারের গাড়িতে খোয়াই ডাকবাংলোতে যান৷‌ সেখানে দুপুরের খাবার খান৷‌ সেখানেই বিশ্রাম৷‌ খবর পেয়ে আগরতলা থেকে রাজ্যপালের গাড়ি এসকর্ট, নিরাপত্তারক্ষীর দল খোয়াই পৌঁছে যায়৷‌ বিকেল ৫টা নাগাদ রাজ্যপাল নিজের এসকর্ট গাড়ি করে আগরতলার উদ্দেশে রওনা দেন৷‌ সিধাই, মোহনপুর হয়ে সন্ধে ৭টা নাগাদ আগরতলায় এসে পৌঁছন রাজ্যপাল৷‌ এদিকে পুলিস সদর দপ্তর সূত্রে খবর, গত ২২ জুলাই বিমানপথে রাজ্য ছেড়েছিলেন রাজ্যপাল৷‌ মঙ্গলবার সকাল ১১টায় আগরতলা বিমানবন্দরে পৌঁছনোর কথা ছিল৷‌ কোহিমা থেকে সকাল সাড়ে ৯টায় রওনা দেওয়ার কথা৷‌ সেই মতো আগরতলা বিমানবন্দরে রাজ্যপালের বাহন-সহ কনভয় সকাল ১১টার আগে পৌঁছে যায়৷‌ দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার জন্য রাজ্যপালের হেলিকপ্টার কোহিমা থেকে ১২-৩০ নাগাদ রওনা দেয়৷‌ কিন্তু বৃষ্টির মধ্যে প্রায় কিছুই দেখতে পাচ্ছিলেন না পাইলট৷‌ দৃশ্যমানতা অত্যধিক নিচে নেমে আসে৷‌ বাধ্য হয়ে পাইলট কল্যাণপুরে জরুরি অবতরণ করান হেলিকপারটির৷‌ না হলে বিপদ ঘটার প্রবল সম্ভাবনা ছিল৷‌ রাজ্যপালের জন্য বিকেল ৩টে পর্যম্ত আগরতলা বিমানবন্দরে অপেক্ষা করে এসকর্ট গাড়িগুলো৷‌ এরপর তাড়াতাড়ি খোয়াইয়ের উদ্দেশে রওনা দেয়৷‌ অন্যদিকে বৃষ্টি কমার পর বিকেল সাড়ে ৪টে নাগাদ বৈরাগীপাড়া স্কুল থেকে হেলিকপ্টারটি রওনা দেয় আগরতলা বিমানবন্দরের উদ্দেশে৷‌ বিকেল ৫টা নাগাদ পৌঁছয় আগরতলায়৷‌


kolkata || bangla || bharat || bidesh || editorial || post editorial || khela ||
Tripura || Error Report || archive || first page

B P-7, Sector-5, Bidhannagar, Kolkata - 700091, Phone: 30110800, Fax: 23675502/5503
Copyright © Aajkaal Publishers Limited

Designed, developed & maintained by   Remote Programmer Private Limited