Aajkaal: the leading bengali daily newspaper from Kolkata
কলকাতা ৩ আশ্বিন ১৪২১ শনিবার ২০ সেপ্টেম্বর ২০১৪
 প্রথম পাতা   কলকাতা  বাংলা  ভারত  বিদেশ  সম্পাদকীয়  উত্তর সম্পাদকীয়  খেলা  সংস্কৃতি  ঘরোয়া  পর্দা  আজকাল-ত্রিপুরা   পুরনো সংস্করন  বইঘর 
যাদবপুর অচল--গৌতম চক্রবর্তী ।। ‌ট্যাক্সি উধাও, বাস-মিনিবাসও কম--আজ চালকদের ‘লালবাজার চলো’ ।। মধ্যমগ্রাম গণধর্ষণ--৫ অভিযুক্তের ২০ বছরের কারাদণ্ড ।। শ্রমিক-অসম্তোষ, বন্ধই হয়ে গেল গ্লস্টার জুট মিল--প্রিয়দর্শী বন্দ্যোপাধ্যায় ।। আগামী বছরের মধ্যে সব কাজ শেষ করতে নির্দেশ মুখ্যমন্ত্রীর ।। আগামী দিনে কংগ্রেসের ভাল দিন দেখছেন নেতারা ।। ভারত-চীন যৌথ বিবৃতিতে গুরুত্ব পেল সীমাম্ত-শাম্তি ।। ওড়িশা, বাংলায় ডবল এজেন্টের হদিস ।। তৃণমূলের আশঙ্কা, ভবিষ্যতে কংগ্রেসি ভোট যাবে বি জে পি-তে ।। বামফ্রন্টের ২২শের মিছিলে যাদবপুর বিশ্ববিদ্যালয়ের ঘটনাও ‘ইস্যু’ হবে ।। স্বাধীনতা নয়! রায় স্কটল্যান্ডের ।। শুভেন্দু আর রবীন এক নয়: সূর্য
আজকাল-ত্রিপুরা

আমবাসায় পঞ্চায়েত প্রশিক্ষণ কেন্দ্র উদ্বোধন

মুনশিমুড়ার ঘটনায় এখন ব্যথিত দু’পক্ষই, আজ বৈঠক

আজ দিল্লি থেকে দেহ আসছে

আশা: এক্ষেত্রেও ত্রিপুরা সেরা হবে

লামডিংয়ে আটক ট্রেনযাত্রীদের তুমুল বিক্ষোভ: ঘেরাও, অবরোধ

১৫ কলেজে আগেই জয়ী এস এফ আই

বিশালগড় ব্লকে নয়ছয়ের অভিযোগ

চেক জালিয়াতির দায় স্বীকার করে ক্যাশিয়ারের দাবি, টাকা ৪ ভাগ হয়েছে

মুখ্যমন্ত্রীর কাছে রাবার শ্রমিক-উৎপাদক সমিতির ডেপুটেশন আজ

পুজো এসে গেল

পাঁচ ক্লাসের ছাত্রকে ‘স্পাই’ বলে বি এস এফ ক্যাম্পে আটক: অবরোধ

হরিবলায় গাছে খোদাই দুর্গা প্রতিমা, রাধামাধবে চিপ‍্স প্যাকেটের প্যান্ডেল

আমবাসায় পঞ্চায়েত প্রশিক্ষণ কেন্দ্র উদ্বোধন

ত্রিস্তরে নির্বাচিতদের জনগণের আস্হা ও বিশ্বাস অর্জন করতে হবে: মুখ্যমন্ত্রী

Google plus share Facebook share Twitter share LinkedIn share

দিব্যেন্দু সাহা, আমবাসা

১৯ সেপ্টেম্বর– গ্রামের উন্নয়নের স্বার্থে পঞ্চায়েত ব্যবস্হার কোনও বিকল্প নেই৷‌ পঞ্চায়েতের ওপর ভিত্তি করেই উন্নয়নের প্রকল্প রূপায়িত করে থাকে রাজ্য সরকার৷‌ সারা দেশের মধ্যেই আমাদের রাজ্যের পঞ্চায়েত ব্যবস্হা দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে৷‌ শুক্রবার আমবাসায় ধলাই জেলার পঞ্চায়েতরাজ প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের উদ্বোধকের ভাষণে কথাগুলি বলেন মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার৷‌ ধলাই জেলাবাসীর দীর্ঘদিনের প্রতীক্ষার অবসান ঘটিয়ে ফলক উন্মোচনের মধ্য দিয়ে পঞ্চায়েতের নবনির্বাচিত সদস্যদের জন্য এই প্রশিক্ষণ কেন্দ্রটি এদিন উন্মুক্ত করে দেন মুখ্যমন্ত্রী৷‌ গ্রামোন্নয়ন দপ্তরের উদ্যোগে প্রায় ১১ কোটি টাকায় আমবাসার চান্দ্রাইছড়া এলাকায় নবনির্মিত এই বাড়িটিতে যেমন রয়েছে অত্যাধুনিক পরিকাঠামোযুক্ত প্রশিক্ষণ ব্যবস্হা, তেমনি রয়েছে পুরুষ ও মহিলাদের জন্য পৃথক থাকার ব্যবস্হা, রান্নাঘর, খাবারের বন্দোবস্ত-সহ প্রশিক্ষণের অত্যাধুনিক প্রেক্ষাগৃহ৷‌ এদিন নজরকাড়া এই সুদৃশ্য বাড়িটির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এ ছাড়াও উপস্হিত ছিলেন পঞ্চায়েত মন্ত্রী মানিক দে, ধলাই জেলা পরিষদের সভাধিপতি শৈলেশচন্দ্র আচার্য, বিধায়ক ললিতকুমার দেববর্মা, সুধীর দাস, নিরাজয় ত্রিপুরা ও বিজয়লক্ষ্মী সিনহা৷‌ উপস্হিত ছিলেন ধলাই জেলার জেলাশাসক মিলিন্দ রামটেকে ও গ্রামোন্নয়ন দপ্তরের মুখ্য বাস্তুকার তরুণকাম্তি দেবনাথ৷‌ এদিন অনুষ্ঠানে উপস্হিত ধলাই জেলার ত্রিস্তর পঞ্চায়েতে নির্বাচিত সদস্যদের উদ্দেশে মুখ্যমন্ত্রী মানিক সরকার বলেন, প্রকৃত অর্থে সব ক্ষমতার উৎস ও মালিক হচ্ছেন জনগণ৷‌ মনে রাখতে হবে, জনগণের ভোটেই জনপ্রতিনিধিরা নির্বাচিত হন৷‌ তাই জনগণকে বাদ দিয়ে কোনও কাজই সম্ভব নয়৷‌ জনগণের আস্হা ও বিশ্বাস অর্জন করতে হবে৷‌ সত্যভাষী হতে হবে৷‌ মিথ্যার আশ্রয় নেওয়া চলবে না৷‌ নিজেদের জীবনযাত্রার মান স্বাভাবিক রেখে পরিবার-পরিজনদের নিয়ে এমনভাবে চলতে হবে, যেন কারও কোনও সন্দেহ না হয়৷‌ তবেই জনগণ আপনাদের বিশ্বাস করবেন৷‌ জনগণের সঙ্গে পরামর্শ করে তাঁদের সঙ্গে নিয়ে উন্নয়নের কাজে অংশগ্রহণ করতে হবে৷‌ তবেই জনগণ ও প্রতিনিধিদের নিবিড় সম্পর্ক গড়ে উঠবে৷‌ তিনি বলেন, প্রশাসনিক স্তরে সরকারি কর্মচারীদেরও জনগণের কথাবার্তা ও পরামর্শকে গুরুত্ব দিতে হবে৷‌ সমস্যা সমাধানে এগিয়ে আসতে হবে৷‌ তিনি আরও বলেন, জনগণ নানা সমস্যা নিয়ে নির্বাচিত প্রতিনিধিদের কাছে আসবেন৷‌ প্রথমেই মনোযোগ দিয়ে তাঁদের কথা শুনতে হবে৷‌ সামর্থ্যের মধ্যে থাকলে তাৎক্ষণিক উদ্যোগ নিতে হবে সমাধানের৷‌ আর সামর্থ্যের বাইরে থাকলে সহজ ভাষায় বুঝিয়ে দিতে হবে৷‌ তবেই জনগণ ও প্রতিনিধির মধ্যে নিবিড় সম্পর্ক গড়ে উঠবে৷‌ সৎ, নিষ্ঠাবান, দুর্নীতিগ্রস্ত জীবনযাপন, অনিয়ম দেখলেই প্রতিবাদ করা– এগুলি এই প্রশিক্ষণ কেন্দ্রে শেখানোর বিষয় নয়৷‌ এই বিষয়গুলি চার দেওয়ালের মধ্যে প্রশিক্ষণের বিষয়বস্তু থেকেও বেশি গুরুত্বপূর্ণ৷‌ জনগণের উদ্দেশে তিনি বলেন, শুধু ভোট দেওয়াই জনগণের কাজ নয়৷‌ নিজ এলাকায় নির্মাণকার্য ঠিক হচ্ছে কি না, কোনও কাজে চুরি হচ্ছে কি না এগুলির প্রতি লক্ষ্য রাখতে হবে৷‌ না হলে জনকল্যাণকর প্রকল্প রূপায়ণেও ভাল জায়গায় পৌঁছতে কষ্ট হবে৷‌ আমাদের লক্ষ্য নিরক্ষরমুক্ত ত্রিপুরা, গৃহহীনমুক্ত ত্রিপুরা, ভিক্ষুকমুক্ত ত্রিপুরা, দুর্নীতিমুক্ত ত্রিপুরা৷‌ প্রত্যেকের জীবনমান সমৃদ্ধ করা৷‌ তবেই গড়ে উঠবে আদর্শ ত্রিপুরা, সমৃদ্ধ ত্রিপুরা৷‌ ত্রিস্তর পঞ্চায়েতের প্রতিনিধি ও বিধায়করা মিলেই এই কাজ করতে হবে৷‌ এদিন সংক্ষিপ্ত ভাষণে পঞ্চায়েত মন্ত্রী মানিক দে বলেন, উন্নয়নের অন্যতম চাবিকাঠি পঞ্চায়েতি ব্যবস্হাপনা৷‌ ভারতে পরপর দু’বার পঞ্চায়েতি ব্যবস্হা পরিচালনায় আমাদের রাজ্য প্রথম ও দ্বিতীয় স্হান দখল করেছে৷‌ যাঁরা নতুন নির্বাচিত সদস্য, তাঁদেরকে পঞ্চায়েতি ব্যবস্হা সম্পর্কে ওয়াকিবহাল করতে ও পঞ্চায়েতের মধ্য দিয়ে পরিচালিত বিভিন্ন প্রকল্প রূপায়ণের প্রশিক্ষণ দেওয়ার জন্যই এই প্রশিক্ষণ কেন্দ্র৷‌ উপযুক্ত প্রশিক্ষণের মধ্য দিয়ে ত্রিস্তর পঞ্চায়েতে নির্বাচিত সদস্যদের দক্ষ করাই হবে এই কেন্দ্রের লক্ষ্য৷‌ সততা ও নিষ্ঠার সঙ্গে মানুষের সমস্যাগুলি শুনে সমাধানে এগিয়ে আসতে ও চাহিদাগুলি অনুধাবন করে উদ্যোগ নিতে জনপ্রতিনিধিদের প্রতি আহ্বান জানান তিনি৷‌


kolkata || bangla || bharat || bidesh || editorial || post editorial || khela ||
sangskriti || ghoroa || tv/cinema || Tripura || Error Report || archive || first page

B P-7, Sector-5, Bidhannagar, Kolkata - 700091, Phone: 30110800, Fax: 23675502/5503
Copyright © Aajkaal Publishers Limited

Designed, developed & maintained by   Remote Programmer Private Limited