Aajkaal: the leading bengali daily newspaper from Kolkata
কলকাতা ৬ কার্তিক ১৪২১ শুক্রবার ২৪ অক্টোবার ২০১৪
 প্রথম পাতা   কলকাতা  বাংলা  ভারত  বিদেশ  সম্পাদকীয়  উত্তর সম্পাদকীয়  খেলা   পুরনো সংস্করন  বইঘর 
মোম, আতশের আলোয় মাতোয়ারা রাজ্যে থিমও এবার নায়ক--কাকলি মুখোপাধ্যায় ।। আজ খাগড়াগড়ের ঘটনাস্হলে যাবেন এন আই এ-র ডি জি--চন্দ্রনাথ মুখোপাধ্যায় ।। পুলিস হাসপাতালের সামনেই দেদার ‘ক্যাডবেরি’!--সোমনাথ মণ্ডল ।। টাকার উৎস খুঁজতে জেলা পুলিসেরই সাহায্য নিচ্ছে এন আই এ, ই ডি ।। কলকাতার কাউন্সিলরদের নিয়ে বৈঠক ডাকলেন মমতা--দীপঙ্কর নন্দী ।। তৃণমূল কাউন্সিলরের নেতৃত্বে তথ্যপ্রযুক্তি কর্তাকে মারধর, অফিস ভাঙচুর দুর্গাপুরে ।। শিবসেনা: ১৯৯৫-এর সূত্র বি জে পি: কী করে হবে? ।। শরিফকে গদিচ্যুত করতে জনমত গড়বেন বিলাওল ।। কেশপুরে তৃণমূল নেত্রী খুনে সন্দেহের তীর স্বামীর দিকে ।। জনসংযোগ বাড়াতে রাজ্য মানবাধিকার কমিশন এবার ফেসবুকে ।। সিয়াচেনের হিম-কঠোর উচ্চতায় মোদির দেওয়ালি ।। খুলেও খুলল না জেসপ, হতাশায় ৬৫০ শ্রমিক!
সম্পাদকীয়

যদি নজরে পড়ে...

যদি নজরে পড়ে...

Google plus share Facebook share Twitter share LinkedIn share

খবরের কাগজে প্রকাশিত ছোট-খাটো সংবাদ কি কখনও দেশের খুব বড় বড় নেতাদের নজরে পড়ে? নিশ্চিত হয়ে এমন প্রশ্নের উত্তর দেওয়া বেশ কঠিন৷‌ যদি কেউ অতিরিক্ত আত্মবিশ্বাসী হয়ে বলেন– নিশ্চয় নজরে পড়ে, নেতাদের সব দিকেই খেয়াল রাখতে হয়, হয়ত এই উত্তরটাও বেশ খানিকটা নির্ভুল৷‌ কিন্তু এই অনুমান সঙ্গে সঙ্গে আরও একটা প্রশ্নের জন্ম দেবে– তা হলে সেই গুরুত্বপূর্ণ নেতাদের সদর্থক প্রতিক্রিয়ার খবর পাওয়া যায় না কেন? এই প্রশ্নের উত্তর নেই, অম্তত এ দেশে পাওয়া যায় না৷‌ সম্প্রতি গুরগাঁওয়ের সিকন্দরপুরে তিনজন নাগা যুবক আমন্ত্রণ পেয়ে মদ্যপানের বৈঠকে উপস্হিত না হওয়ায় সেই গ্রামেরই আটজন যুবক সেই তিনজনকে এমন সৌজন্যমূলক আদর-আপ্যায়ন করেছেন যে, সেই তিন কল সেন্টার কর্মীকে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্হায় দিন কাটাতে হচ্ছে৷‌ আমাদের সভ্যতা ও সংস্কৃতিবোধ কিছুটা আলাদা৷‌ সহজে কঠিন চেহারার সত্য উচ্চারণ করতে বাধে৷‌ ছোট্ট খবরে প্রকাশিত এই ঠ্যাঙানোর ঘটনাটিকে সরাসরি জাতিবিদ্বেষ বলতে হয়ত অনেকের অর্থাৎ অনেক নেতার এখনও আপত্তি হবে৷‌ কিন্তু গুরগাঁওয়ের হাসপাতালে শুয়ে থাকা তিন নাগা যুবকের ঘটনাটিকে নির্ভেজাল জাতিবিদ্বেষ ছাড়া আর কিছুই মনে হবে না৷‌ অন্য কিছু মনে হওয়ার কোনও কারণও নেই৷‌ কিছুকাল আগে খোদ রাজধানী দিল্লিতে দেশের উত্তর-পূর্ব অঞ্চলের একজন যুবক খুন হয়েছিলেন একই কারণে, মানে জাতিবিদ্বেষে৷‌ এমন দিন কি কখনও এ দেশে আসবে যে, এই ধরনের সংবাদ প্রকাশিত হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে দেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বা স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী কঠোর ব্যবস্হা নেওয়ার নির্দেশ দেবেন? সম্ভাবনা খুব কম, কারণ বাস্তবে ব্যবস্হা নেওয়ার চেয়ে আদর্শের বাণী বিতরণ অনেক সহজ কাজ৷‌





kolkata || bangla || bharat || bidesh || editorial || post editorial || khela ||
Error Report || archive || first page

B P-7, Sector-5, Bidhannagar, Kolkata - 700091, Phone: 30110800, Fax: 23675502/5503
Copyright © Aajkaal Publishers Limited

Designed, developed & maintained by   Remote Programmer Private Limited